বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো হতে যাচ্ছে আন্তর্জাতিক বাংলা সাহিত্য সম্মেলন।

International Bangla Literature Conference
শেখ হাসিনা ও প্রণব মুখার্জি
International Bangla Literature Conference
শেখ হাসিনা ও প্রণব মুখার্জি

আজবাংলা বাংলাদেশ  আগামী ১৩-১৫ জানুয়ারি ঢাকায় অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে আন্তর্জাতিক বাংলা সাহিত্য সম্মেলন’। তিন দিনের এ সম্মেলন হবে বাংলা একাডেমিতে। বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশের তিন শতাধিক কবি-লেখক-সাহিত্যিক-সমালোচক অংশ নেবেন। ১৩ জানুয়ারি শনিবার বিকেল ৩টায় একাডেমির আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ মিলনায়তনে সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সভাপতিত্ব করবেন ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান। উদ্বোধনের পর অনুষ্ঠান সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে। ১৫ জানুয়ারি সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেবেন ভারতের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি। সম্মেলনে বিষয়ভিত্তিক ছয়টি সেমিনারের সঙ্গে উপস্থাপিত হবে দুটি মঞ্চনাটক এবং সঙ্গীত, গল্প ও কবিতাপাঠ, চলচ্চিত্র প্রদর্শনী ও আবৃত্তি অনুষ্ঠান। বিভিন্ন ভাষায় প্রকাশিত বই এবং লিটল ম্যাগাজিনের বিক্রয় ও প্রদর্শনীর ব্যবস্থাসহ আপ্যায়নের জন্য থাকবে রেস্তোরাঁ। সম্মেলন আয়োজন করছে আন্তর্জাতিক বাংলা সাহিত্য সম্মেলন পরিষদ। সহযোগিতায় নিখিল ভারত বঙ্গ সাহিত্য সম্মেলন ও ফ্রেন্ডস অব বাংলাদেশ। এ উপলক্ষে বাংলা একাডেমির সভাকক্ষে গতকাল রোববার আন্তর্জাতিক বাংলা সাহিত্য সম্মেলন পরিষদ সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করে। সম্মেলনের বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরেন আয়োজক পরিষদের প্রধান সমন্বয়ক নাসির উদ্দীন ইউসুফ। পরিষদের সভাপতি ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামানের সভাপতিত্বে সম্মেলনের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলেন নিখিল ভারত বঙ্গ সাহিত্য সম্মেলন সাধারণ সম্পাদক জয়ন্ত ঘোষ, ফ্রেন্ডস অব বাংলাদেশের সহসভাপতি সত্যম রায়, জাতীয় কবিতা পরিষদের সভাপতি মুহাম্মদ সামাদ ও সাধারণ সম্পাদক তারিক সুজাত প্রমুখ। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ১৯৭৪ সালে স্বাধীন বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো আন্তর্জাতিক বাংলা সাহিত্য সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এই সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। ১৯২২ সালে ভারতের বেনারসে কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের সভাপতিত্বে প্রথম ‘নিখিল ভারত বঙ্গ সাহিত্য সম্মেলন’ অনুষ্ঠিত হয়। এরপর ৯৪ বছরে ৮৯ বার এ সম্মেলন ধারাবাহিকভাবে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। সাহিত্য সম্মেলন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে ২০১ সদস্য বিশিষ্ট আয়োজক পরিষদ গঠন করা হয়েছে। এ পরিষদের প্রধান পৃষ্ঠপোষক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। অন্য পৃষ্ঠপোষক হলেন ভারতের ঝাড়খণ্ড রাজ্যের মন্ত্রী সরযু রায়। প্রধান উপদেষ্টা হিসেবে আছেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। সম্মেলন আয়োজক পর্ষদের সভাপতি ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান।